Friday, December 9, 2022
HomeUncategorizedকি ঔষধ সেবন করলে মোটা হওয়া যায়

কি ঔষধ সেবন করলে মোটা হওয়া যায়

সম্মানিত পাঠ্যক্রম আসসালামুআলাইকুম আশা করি সবাই ভালো আছেন আজ আপনাদের সাথে কথা বলব কি ঔষধ সেবন করলে মোটা হওয়া যায় ইত্যাদি সম্পর্কে : কি ঔষধ সেবন করলে মোটা হওয়া যায়?মোটা হওয়ার কিছু ট্যাবলেট এর নাম?মোটা হওয়ার হোমিও ঔষধের নাম? মোটা হওয়ার প্রাকৃতিক ঔষধ?মোটা হওয়ার ভিটামিন ক্যাপসুল?মোটা হওয়ার ঔষধ পার্শ্বপ্রতিক্রিয়া?সিনকারা সিরাপ খেলে কি মোটা হওয়া যায়?স্বাস্থ্য হওয়ার ঔষধ ?কলিকাতা হারবাল মোটা হওয়ার উপায়?ইত্যাদি সম্পর্কে বলুন বন্ধুরা আর কথা না বাড়িয়ে আমরা আমাদের মূল আলোচনায় চলে যাই।

অনলাইনে ছেলেদের ও মেয়েদের যাবতীয় পার্সোনাল ও গোপনীয় পণ্যসামগ্রী সহ নিত্যপ্রয়োজনীয় পণ্য কসমেটিক সামগ্রী দেশের সবচেয়ে কম দামে ক্রয় করতে ভিজিট করুন আমাদের ওয়েবসাইট gazivai.com

পিউটন সিরাপঃ এটি একটি কার্যকরী ঔষধ, যার মাধ্যমে আপনি খুব কম সময়ের মধ্যে মোটাতাজা হতে পারবেন এবং শারীরিক ভাবে পুরোপুরি ফিট হতে পারবেন। এই সিরাপের মূল্য হতে পারে ৩৬০ টাকা অথবা আপনার আশেপাশে থাকা ফার্মেসিতে এর দাম কম বেশি হতে পারে। তবে ঔষধ সেবন করার পূর্বে ডাক্তারের পরামর্শ অবশ্যই নিয়ে নিবেন।

janbobd.net
janbobd.net

আরো পড়ুনঃ মোটা হওয়ার ইন্ডিয়ান গুড হেলথ কিনতে ক্লিক – এখনই কিনুন

স্টেরয়েড ও হরমোন: সম্ভবত সবচেয়ে বেশি এ ঘটনাটি দেখা যায় স্টেরয়েড নিয়ে। স্টেরয়েড একটি ধন্বন্তরি ওষুধ। বিশেষ করে হাঁপানি বা অ্যালার্জি হঠাৎ বেশি বেড়ে গেলে, প্রচণ্ড ব্যথা-বেদনা কমাতে কিংবা ত্বকের ও হাড়সন্ধির নানা সমস্যায় চিকিৎসকেরা স্টেরয়েড দিয়ে থাকেন। বেশির ভাগ ক্ষেত্রেই এ ওষুধ হয়তো কয়েক দিনের জন্য খেতে দেওয়া হয়। কিন্তু রোগীরা উপশম পেয়ে বারবার বা একটানা দীর্ঘদিন খেতে থাকেন। ফলে ওজন বাড়তে থাকে। বাজারে প্রচলিত অনেক হারবাল, টোটকা বা ভেষজ ওষুধ আসলে কিছুই নয়, এই স্টেরয়েড। তাই এসব থেকে সাবধান।

মোটা হওয়ার কিছু ট্যাবলেট এর নাম

ওষুধের বিকল্প খোঁজা উচিত। কেননা, একই সঙ্গে ওজন কমায় ও কার্যকর নানা নতুন ওষুধ, যেমন মেটফরমিন, ডিপিপি ৪ ইনহিবিটর ইত্যাদি এখন বাজারে রয়েছে। ইনসুলিনও ওজন বাড়ানোর দায়ে অভিযুক্ত। এখানেও ওজন কম বাড়ায় এমন আধুনিক অ্যানালগ ইনসুলিনের কথা ভাবতে পারেন।

মানসিক রোগের ওষুধ: বিষণ্নতার নানা ওষুধ, মানসিক রোগ ও মৃগীরোগের বিভিন্ন ওষুধও ওজন বাড়ায়। যেমন অ্যান্টিডিপ্রেশেন্ট, সোডিয়াম ভ্যালপ্রোয়েট বা লিথিয়াম। কিন্তু প্রয়োজনে এ ধরনের ওষুধ আপনাকে খেতে হতে পারে। সে ক্ষেত্রে ওজন কমানোর জন্য অন্য দিকে সচেষ্ট হোন।

janbobd.net
janbobd.net

আরো পড়ুনঃ ছেলেদের টাইটান জেল সরাসরি কিনতে ক্লিক-এখনই কিনুন

একটা ধারণা আছে যে ভিটামিন, ক্যালসিয়াম ইত্যাদি খেলে ওজন বাড়ে, কিন্তু আসলে তা নয়। এসব ওষুধের সঙ্গে ওজন বাড়ার সম্পর্ক নেই। সব ধরনের ঘুমের ওষুধেও ওজন বাড়ে না। আর ওজন বাড়ার জন্য হয়তো আপনার জীবনাচরণই বেশি দায়ী, সে দিকটাও লক্ষ করুন।

১) dexona – এই ওষুধটি চিকিৎসকরা সাধারণত এলার্জি, হাঁপানি , ক্যান্সার রোগে স্টেরোয়েড হিসাবে ব্যবহার করেন। এর দাম ৩০ টি ট্যাবলেট মাত্র ১২ টাকা। এটি অনেকেই মোটা হওয়ার জন্য ইচ্ছামতো দোকান থেকে কিনে খেয়ে যান। ডিক্সনা ৬দীর্ঘদিন ব্যাবহার করলে কিডনি ড্যামেজ হতে পারে, লিভার ফাঙ্কশন দুর্বল হয়ে যেতে পারে।

কি ঔষধ সেবন করলে মোটা হওয়া যায়

মোটা হওয়ার হোমিও ঔষধের নাম

মোটা হওয়ার হোমিও ওষুধের নাম হোমিও ওষুধের রয়েছে অনেকের মধ্যে উল্লেখযোগ্য ঔষধ হলো আলফামালট।
আলফামালট সেবন করার পূর্বে অবশ্যই একজন হোমিও ডাক্তারের পরামর্শ করে নিবেন।
যেকোনো ফার্মেসি বা হোমিও দোকানে কিনতে পারবেন তবে অবশ্যই দেখে কিনুন।
সচরাচর ফার্মেসিতে গেলে দেখা যায় কিছু ওষুধ রয়েছে যেগুলো মোটা হওয়ার জন্য ব্যবহার করা হয় ভিটামিন ও ক্ষুধাবর্ধক হিসাবে পরিচিত এই ওষুধগুলো স্বাস্থ্যের জন্য সম্পূর্ণ ঝুঁকিপূর্ণ

janbobd.net
janbobd.net

আরো পড়ুনঃ মোটা হতে ইন্ডিয়ান বডি বিল্ডো কিনতে ক্লিক- এখনই কিনুন

পুদিনা এস রুচিট্যাব রুচিট্যাব রুচিট্যাব রুচিট্যাব আমলকি প্লাস। এই ওষুধগুলো খাওয়ার পরে স্বাস্থ্য মোটা হবে ঠিকই কিন্তু শরীরে নানা ধরনের জটিল সমস্যা সৃষ্টি হবে যেমন বরুড়া ইনফিউশন কিডনিতে সমস্যা হার্টের সমস্যা ইত্যাদি তাই ডাক্তারের পরামর্শ ছাড়া কোনো ওষুধ সেবন করা উচিত নয়

মোটা হওয়ার প্রাকৃতিক ঔষধ

নিয়মিত খাবার খান আপনি যতটুকু পরিশ্রম করেন তার থেকে বেশি খাবার চেষ্টা করুন। প্রয়োজনের তুলনায় বেশি খাওয়ার চেষ্টা করুন সেই সাথে ব্যায়াম করার চেষ্টা করুন কখনো ডায়েট করার চেষ্টা করবেন না। খাবার তালিকায় অধিক পুষ্টি চক্র খাবার বেশি রাখুন কলা ডিম গোশত বেশি খাওয়ার অভ্যেস করুন।

স্থায়ীভাবে মোটা হতে চাইলে আপনাকে অবশ্যই কিছু নিয়ম নীতি বা খাদ্য তালিকা মেনে চলতে হবে। তাই আজকের পোষ্টে আমরা আপনাদের জন্য মোটা হওয়ার কিছু কার্যকারী উপায় এবং একটি পূর্ণাঙ্গ খাদ্যতালিকা শেয়ার করব। আশা করি আপনি সম্পূর্ণ পোস্ট করবেন তাহলে আপনিও খুব সহজে প্রাকৃতিক ভাবে মোটা হতে পারবেন।

চিকন হতে চাইলে যে রকম আমরা ক্যালোরি কমিয়ে নিই, তেমনি মোটা হতে চাইলে ক্যালোরি বাড়িয়ে নিতে হবে। আপনার প্রয়োজনের চেয়েও ৪০০/৫০০ বা ৭০০ ক্যালোরি গ্রহন করুন।

মোটা হওয়ার ভিটামিন ক্যাপসুল

মোটা হওয়ার সবচাইতে আদর্শ ঔষধ হচ্ছে সিনকারা লিমিটেড। সিনকারা সেবন করার ফলে একদিকে যেমন শরীরে অন্যদিকে শরীরের নানা পুষ্টি চাহিদা ও নানান উপাদান পূরণ হয়। সিনকারা পুষ্টি মূল্য খুবই সীমিত 750 মিলি সাইজের একটি ঔষধের দাম ২০০ টাকা।

সচরাচর ফার্মেসিতে গেলে দেখা যায় কিছু ওষুধ রয়েছে যেগুলো মোটা হওয়ার জন্য ব্যবহার করা হয়। ভিটামিন ও ক্ষুধাবর্ধক হিসেবে পরিচিত এই ওষুধগুলি স্বাস্থ্যের জন্য সম্পুর্ন ঝুঁকিপূর্ণ। এই ব্যাপারে আমাদের আরো সচেতন হতে হবে, দ্রুত মোটা হওয়ার চিন্তা মাথা থেকে ঝেড়ে ফেলতে হবে।

এই আজেবাজে ওষুধ সেবন করা থেকে বিরত থাকতে হবে। আর আমি এগুলোকে ওষুধ বলব না। সহজ ভাষায় বলতে গেলে রোগ সারানো বা সুস্বাস্থ্য নিশ্চিত করার জন্য যেগুলো সেবন করা হয় সেগুলো হলো ওষুধ।

সাধারণত অনেক ফার্মেসিতে মোটা হওয়ার জন্য যে ক্ষতিকর ওষুধ পাওয়ার যায় সেগুলোর মধ্যে রয়েছে –

পুদিনা এস, রুচিট্যাব, রুচিক্যাব, রুচিমেড, রুচিনিড, আমলকি প্লাস ইত্যাদি। এই ওষুধ গুলি খাওয়ার ফলে স্বাস্থ্য মোটা হবে ঠিকই কিন্তু শরীরে নানা ধরনের জটিল সমস্যার সৃষ্টি হবে (যেমনঃ প্লুরা ইফিউশন, কিডনিতে সমস্যা, হার্টে সমস্যা ইত্যাদি)। তাই ডাক্তারের পরামর্শ ছাড়া কোন ওষুধ সেবন করা উচিৎ নয়।

মোটা হওয়ার ঔষধ পার্শ্বপ্রতিক্রিয়া

সাধারণত অনেক ফার্মেসিতে মোটা হওয়ার জন্য যে ক্ষতিকর ওষুধ পাওয়ার যায় সেগুলোর মধ্যে রয়েছে –

পুদিনা এস, রুচিট্যাব, রুচিক্যাব, রুচিমেড, রুচিনিড, আমলকি প্লাস ইত্যাদি। এই ওষুধ গুলি খাওয়ার ফলে স্বাস্থ্য মোটা হবে ঠিকই কিন্তু শরীরে নানা ধরনের জটিল সমস্যার সৃষ্টি হবে (যেমনঃ প্লুরা ইফিউশন, কিডনিতে সমস্যা, হার্টে সমস্যা ইত্যাদি)। তাই ডাক্তারের পরামর্শ ছাড়া কোন ওষুধ সেবন করা উচিৎ নয়।

সিনকারা সিরাপ খেলে কি মোটা হওয়া যায়

সিনকারা খেয়ে মোটা হওয়া যাবে না। তবে ইহা রূচি বর্ধক। আপনি নিয়মিত ক্যালরিযুক্ত খাবার খান এতে আপনার ওজন বাড়বে।

পিউটন সিরাপঃ এটি একটি কার্যকরী ঔষধ, যার মাধ্যমে আপনি খুব কম সময়ের মধ্যে মোটাতাজা হতে পারবেন এবং শারীরিক ভাবে পুরোপুরি ফিট হতে পারবেন। এই সিরাপের মূল্য হতে পারে ৩৬০ টাকা অথবা আপনার আশেপাশে থাকা ফার্মেসিতে এর দাম কম বেশি হতে পারে। তবে ঔষধ সেবন করার পূর্বে ডাক্তারের পরামর্শ অবশ্যই নিয়ে নিবেন।

RELATED ARTICLES

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

- Advertisment -

Most Popular

Recent Comments

x
error: Content is protected !!