Friday, November 25, 2022
Home Blog

geo politics গ্রন্থের রচয়িতা কে

0

রাষ্ট্রবিজ্ঞানের ছাত্র হিসাবে সবার

জানা বেশি দরকার।

*বিভিন্ন গ্রন্থের রচয়িতা ও জনক*

political science subject.

১/এরিস্টটল এর বিখ্যাত গ্রন্থের নাম কি?

উঃ “The Politics”

২/”De Republica” গ্রন্হটির লেখক কে? উঃ

সিসেরো।

৩/প্লেটোর বিখ্যাত গ্রন্থের নাম কি? উঃ

The Republic”

৪/নিকোলো ম্যাকিয়াভেলীর বিখ্যাত

গ্রন্থের নাম কি? উঃ “The Prince”

৫/টমাস হবসের বিখ্যাত গ্রন্থের নাম কি?

উঃ “লেভিয়াথান” “Leviathan”

৬/কার্লমার্কস এর বিখ্যাত গ্রন্থের নাম

কি? উঃ “Das-Capital”

৭/মন্টেস্কুর বিখ্যাত গ্রন্থের নাম কি? উঃ

“The Spirit Of Lows”

৮/ “Notionalism” কার লিখা গ্রন্থ? উঃ

“রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর””

৯/ রুশোর বিখ্যাত গ্রন্থের নাম কি? উঃ

“The Social Contract”

১০/মিলস এর বিখ্যাত গ্রন্থের নাম কি? উঃ

“On Liberty”

১১/ম্যক্র ওয়েবার এর বিখ্যাত গ্রন্থের নাম

কি? উঃ “Essays On Sociology” ।

১২/সেন্ট অগাস্টিনের বিখ্যাত গ্রন্থের

নাম কি? উঃ “The City Of God” ।

১৩/”Two Treatises On Civil Government”

গ্রন্থটির রচয়িতা কে? উঃ “জন লক”

১৪/”Lecturey On Jurisprudence” গ্রন্থটির

রচয়িতা কে? উঃ জন অস্টিন।

১৫/”The Process Of Government” নামক

গ্রন্থের রচয়িতা কে? উঃ “আর্থার

বেন্টলি”।

১৬/”The Rulling Class” গ্রন্থের রচয়িতা কে?

উঃ “লেখক গেইটানো মস্কা”।

১৭/”Political Parties” গ্রন্থের রচয়িতা কে?

উঃ “রবার্ট মিশেলস”।

১৮/”A Grammar Of Politics” গ্রন্থটির রচয়িতা

কে? উঃ “হ্যারল্ড লাস্কির”।

১৯/”Modern Politics And Government” বইটির

লেখক কে? উঃ “এল্যান.আর.বল”।

**/সেন্ট টমাস একুইনাসের বিখ্যাত গ্রন্থের

নাম কি ? উঃ “Summa Theologica” .

geo politics গ্রন্থের রচয়িতা কে

২০/”Voice Of God” কাকে বলে? উঃ জনমতকে।

২১/রাষ্ট্রবিঙ্গান এর জনক কে? উঃ

“এরিষ্টটল”

২২/আধুনিক রাষ্ট্রবিঙ্গানের জনক কে? উঃ

“নিকোলো ম্যাকিয়াভেলী”।

২৩/আমলাতন্ত্রের জনক কে? উঃ ম্যাক্র

ওয়েবার।

২৪/ক্ষমতা স্বতন্ত্রীকরণ নীতির প্রবক্তা

কে? উঃ মন্টেস্কু ।

২৫/সার্বভৌমত্বের প্রবক্তা কে? উঃ জন

অস্টিন।

২৬/আধুনিক সংসদীয় গণতন্ত্রের জনক কে?

উঃ “জন লক”।

২৭/ফ্যাসিবাদের জনক কে? উঃ “ইতালির

মুসোলিনী”।

২৮/বিবর্তনবাদী দার্শনিক কে? উঃ

“হার্বাট স্পেন্সার”।

২৯/আধুনিক সমাজতন্ত্রের জনক কে? উঃ

“কার্ল- মার্কস”।

৩০/সম্মতিতত্ত্বের জনক বলা হয় কাকে? উঃ

“জনলক কে”।

ট্যাবলেট ইনস্পার্ম ( এসপন্দ ) এর কাজ কি

Janbobd.net এর পক্ষ থেকে আপনাদেরকে স্বাগতম ট্যাবলেট ইনস্পার্ম ( এসপন্দ ) এর কাজ কি সম্পর্কেঃ এছাড়াও আমরা বিস্তারিত আলোচনা করবো ট্যাবলেট ইনস্পার্ম ( এসপন্দ ) এর কাজ কি এই ওষুধ টা সম্পর্কে। এ ছাড়াও আপনাদের যদি কোন মতামত থাকে সেটি আমাদের কমেন্ট করে জানিয়ে দিবেন। আপনারা আমাদের অনলাইন শপে পেয়ে যাবেন আপনাদের বিভিন্ন ধরনের প্রয়োজনীয় সব জিনিস। তো চলুন বন্ধুরা আমরা আমাদের মূল আলোচনায় চলে যাই

ট্যাবলেট ইনস্পার্ম ( এসপন্দ ) এর কাজ কি

আমাদের অনলাইন শপে অর্ডার করার ঠিকানা হল অনলাইন শপ Gazivai.com এই ঠিকানায় আপনি পেয়ে যাবেন আপনার যে কোন ধরণের নিত্যপ্রয়োজনীয় পণ্য খুবই কম মূল্যে। তাই আর দেরি না করে এক্ষুনি আমাদের সাইট ভিজিট করে আপনারা অর্ডার করে ফেলুন আপনাদের মনের মত পণ্যটি। আমাদের প্রতিনিধিরা আপনার কাছে পৌছে দেবে আপনার করা অর্ডার করা পণ্যটি। তাই আর দেরি না করে এক্ষুনি কল করুন আমাদের দেয়া নিচের নাম্বারে – 01622913639

আরো পড়ুনঃ ২০ মিনিট সে – ক্স করার স্প্রে কিনতে ক্লিক – এখনই কিনুন

আরো পড়ুনঃ ২০ মিনিট সেক্স করার মেজিক কনডম কিনতে ক্লিক করুন – এখনই কিনুন

ট্যাবলেট ইনস্পার্ম ( এসপন্দ ) এর কাজ কি

শুক্র বৃদ্ধিকারক

বর্ণনা: ইনস্পার্ম এসপন্দ, যত্রিক, লবঙ্গ প্রভৃতি মূল্যবান যৌন শক্তি বর্ধক ওষুধি উদ্ভিদের সমন্বয়ে প্রস্তুুত। ইহা স্নায়বিক দুর্বলতা, শারীরিক দুর্বলতা ও যৌন দুর্বলতা দূর করে। ইনস্পার্ম অতিরিক্ত স্বপ্নদোষ ও দ্রুত বীর্যস্খলন রোধ করে এবং শুক্র গাঢ় করে।

ট্যাবলেট ইনস্পার্ম ( এসপন্দ ) এর কাজ কি

উপাদান: প্রতি ট্যাবলেটে আছে- Peganum harmala (এসপন্দ) ১০০.০০ মিগ্রা, Myristica fragrans arillus (যত্রিক) ১০০.০০ মিগ্রা,Myristica fragrans nut (জায়ফল) ১০০.০০ মিগ্রা, Syzygium aromaticum (লবঙ্গ) ১০০.০০ মিগ্রা, Cinnamomum zeylanicum (দারচিনি) ১০০.০০ মিগ্রা এবং Sesamum indicum (কালো তিল) ১০০.০০ মিগ্রা ।

নির্দেশনা: দ্রুত বীর্যস্খলন, অধিক স্বপ্নদোষ, স্নায়বিক দুর্বলতা, স্নায়বিক বেদনা ।

সেবনবিধি: ২ ট্যাবলেট দৈনিক ২ বার অথবা রেজিস্টার্ড চিকিৎসকের পরামর্শ অনুযায়ী সেব্য।

প্রতিনির্দেশ: কোন প্রতিনির্দেশ নেই।

পার্শ্ব প্রতিক্রিয়া: নির্ধারিত মাত্রায় সেবনে কোন উল্লেখযোগ্য পার্শ্ব প্রতিক্রিয়া পরিলক্ষিত হয়নি।

সতর্কতা: শিশুদের নাগালের বাইরে রাখুন।

সংরক্ষণ: আলো থেকে দূরে, ঠান্ডা ও শুষ্ক স্থানে রাখুন।

পরিবেশনা: প্রতি বাক্সে ব্লিস্টার প্যাকে ৫ X ১০ ট্যাবলেট।

মূল্য: প্রতি বাক্স ২০০.০০ টাকা, প্রতি ট্যাবলেট ৪.০০ টাকা।

আরও পড়ুন: লম্বা হওয়ার দোয়া, যে দোয়ার মাধ্যমে লম্বা হওয়া যায়

আরও পড়ুন: দীর্ঘ সময় মিলন করার ইসলামিক পদ্ধতি

ছবি আঁকার ক্যানভাসের দাম

0

ছবি আঁকার ক্যানভাসের দাম ক্যানভাসে আঁকা ছবিগুলো অনেক সময় জীবন্ত মনে হয় আর আপনার মনে হয়তো প্রশ্ন জাগে। ছবি আঁকার জন্য এই ক্যানভাসগুলোর দাম কত তো চলুন আমাদের আর্টিকেল থেকে একটি সম্ভাব্যতাম জেনে নেয়া যাক।

ছবি আঁকার ক্যানভাসের দাম

ক্যানভাসের মূল্য ৬০-৩৫০ টাকা। ছোট-বড় তুলি পাওয়া যাবে ৩০-৫০ টাকার মধ্যে। এ ছাড়া অয়েল পেইন্টিংয়ের জন্য তুলির খরচ হতে পারে ৩০-৩০০ টাকা পর্যন্ত।

আমাদের আর্টিকেলটিতে আমরা সম্ভাব্যতা তুলে ধরেছি তবে প্রোডাক্টের দাম কখনো বাড়তে বা কমতে পারে তাই যারা ছবি আকার ক্যানভাস বিক্রি করে থাকে তাদের থেকে আপনি বর্তমান ও সঠিক দাম জেনে নিতে পারেন।

যে সকল অনলাইন বা ই-কমার্স প্রতিষ্ঠানগুলো ক্যানভাস বিক্রি করে থাকে তাদের ওয়েবসাইট ভিজিট করে আপনি ঘরে বসেই ক্যানভাস এর দাম জেনে নিতে পারেন অর্ডার করতে পারেন সংগ্রহ করতে পারেন

রোজা রেখে সহবাস করা যায় কি. রোজা রেখে সহবাস করার নিয়ম. রোজা রেখে কখন সহবাস করা যাবে.

প্রিয় পাঠক আসসালামুআলাইকুম আশা করি সবাই ভালো আছেন আমিও আল্লাহর রহমতে ভালো আছি। আজকের আর্টিকেলটি হল রোজা রেখে সহবাস করা যাবে কি না। এটি সবার জন্য জানা খুবই গুরুত্বপূর্ণ। তাই আজকে আমরা জানবো, রোজা রেখে সহবাস করা যায় কি. রোজা রেখে সহবাস করার নিয়ম. রোজা রেখে কখন সহবাস করা যাবে. মেয়েদের ব্রা কালেকশন মাত্র ৮০ টাকা থেকে শুরু ব্রা প্যান্টি কিনতে ক্লিক করুন  – এখনই ব্রা কিনুন

আরও পড়ুন: ভার্জিন মেয়ে চেনার উপায় ছবি সহ

আরও পড়ুন: মালয়েশিয়া টু বাংলাদেশ বিমান ভাড়া কত

আজকের আর্টিকেলটি রোজা রেখে সহবাস করা যাবে কি না বিভিন্ন তথ্য নিয়ে সাজানো হয়েছে। এছাড়াও সহবাস দীর্ঘায়িত করার জন্য সহবাস নিয়ে আনন্দময় করার জন্য বিভিন্ন প্রোডাক্ট এর সমাহার রয়েছে আর্টিকেলটিতে আশা করি এগুলো দেখে নিবেন।

রোজা রেখে সহবাস করা যায় কি

রোজা রেখে দিনে বেলায় স্ত্রী সহবাস করলে রোজা তো নষ্ট হবেই তার সাথে কাযা ও কাফফারা ওয়াজিব হবে। কাযা হলো একটি ভাঙা রোজার বদলে একটি রোজা আর কাফফারা হলো একাধারে ৬০টি রোজা কোনো প্রকার বিরতী ছাড়া।

রমজানে সহবাস সম্পর্কে সূরা আল বাকারার 127 নং আয়াতে বলা হয়, রোজার রাতে তোমাদের স্ত্রীদের সঙ্গে সহবাস করা তোমাদের জন্য হালাল করা হয়েছে। আর পবিত্র কোরআনের আয়াত থেকে এটা প্রমাণিত হয় রোজাদারের জন্য দিনের বেলা সহবাস হালাল করা হয়নি।

রোজা রেখে সহবাস করার নিয়ম

রোজা রেখে সাধারণত দিনের বেলা সহবাস করা যায় না। দিনের বেলা সহবাস করলে রোজা ভেঙ্গে যায়। রমজান মাসে সহবাস করার জন্য সাধারণত কিছু নিয়ম থাকে যেমন ইফতারের পরে নামাজ পড়ে সেহেরী খাওয়ার আগে পর্যন্ত মেলামেশা করা যাবে। এতে রোজার উপর কোন প্রকার খারাপ প্রভাব ফেলবে না। তাই রমজান মাসে নারী-পুরুষ দুজনকে নিয়ন্ত্রণ করে চলতে হয়।

হাদিসে বর্ণনা করা হয়েছে, সিয়ামের রাতে তোমাদের জন্য তোমাদের স্ত্রীদের বৈধ করা হয়েছে। তারা তোমাদের জন্য এবং তোমরাও তাদের জন্য পরিচ্ছদ। কারণ সিয়াম বা রোজা রাখার যে কারণ, খারাপ থেকে বিরত এবং বেশি ইবাদত তা কিন্তু আদায় হবে না।একটা ফরজ ভঙ্গ বা অমান্য মানে গুনাহ, আর এর আলাদা হিসাব হবে। তবে ইচ্ছে কৃত সালাত এবং সাওম বাদ দিবেন না।

রোজা রেখে কখন সহবাস করা যাবে

আমি মনে করি রমজান মাসে রাতে মেলামেশা করা হচ্ছে সঠিক সময়। রমজান মাসে নারী হোক বা পুরুষ ও তাদের অনেক কিছু থেকে সাবধান থাকা উচিত। বিশেষ করে সহবাস। আবার কিছু লোক আছে যারা নিজেদেরকে নিয়ন্ত্রণ করতে পারে না; তার বীর্যপাত দ্রুত হয়ে যায়। এমন ব্যক্তি ফরজ রোযা পালনকালে তার স্ত্রীকে চুম্বন করা, আলিঙ্গন করা ইত্যাদির মাধ্যমে ঘনিষ্ঠ হওয়া থেকে তাকে সাবধান থাকতে হবে।

আর্টিকেলটিতে আমরা রোজা রেখে সহবাস করা যায় কি. রোজা রেখে সহবাস করার নিয়ম. রোজা রেখে কখন সহবাস করা যাবে. সম্পর্কিত তথ্যগুলো তুলে ধরেছি তথ্যগুলো সম্পর্কে যদি আপনার কোন প্রশ্ন থাকে কিংবা কোন জিজ্ঞাসা থাকে সেটি কমেন্টের মাধ্যমে আমাদেরকে লিখে জানাতে পারেন।

আমরা সব সময় আমাদের আর্টিকেল গুলোতে সঠিক ধরনের প্রোডাক্ট সঠিক প্রশ্ন তুলে ধরার চেষ্টা করি . তাই আপনি কিন্তু খুব সহজে আমাদের আর্টিকেলগুলো কোথাকার প্রোডাক্ট গুলো এবং তথ্যগুলো সম্পর্কে আপনার যাবতীয় প্রশ্ন জিজ্ঞাসা গুলো লিখে জানিয়ে দিতে পারেন।

প্রতিদিন সহবাস করলে কি হয়. প্রতিদিন সহবাস করলে শরীরে কী কী হয়. প্রতিদিন সহবাস করলে কি স্বাস্থ্যের ক্ষতি হতে পারে. 

অনলাইন শপ ( গাজী ভাই ডট কম) এর পক্ষ থেকে আজকের আর্টিকেলটিতে সিজারের পর সহবাসের নিয়ম সম্পর্কে কথা বলব : প্রতিদিন সহবাস করলে কি হয় এ সম্পর্কে আমরা বিস্তারিত জানব এবং বিস্তারিত আলোচনা করবো যদি আপনাদের কোন মতামত থাকে তাহলে কমেন্ট করে জানিয়ে দিবেন আমাদের.। তো চলুন বন্ধুরা আর দেরি না করে এক্ষুনি শুরু করা যাক প্রতিদিন সহবাস করলে কি হয় এ সম্পর্কে আলোচনা।

আরও পড়ুন: ভার্জিন মেয়ে চেনার উপায় ছবি সহ

আরও পড়ুন: মালয়েশিয়া টু বাংলাদেশ বিমান ভাড়া কত

অনলাইনে ছেলেদের ও মেয়েদের যাবতীয় পার্সোনাল ও গোপনীয় পণ্যসামগ্রী সহ নিত্যপ্রয়োজনীয় পণ্য কসমেটিক সামগ্রী দেশের সবচেয়ে কম দামে ক্রয় করতে ভিজিট করুন আমাদের ওয়েবসাইট Www.gazivai.com.

প্রতিদিন সহবাস করলে কি হয়

স্বামী স্ত্রীর স্বাস্থ্য ভালো থাকলে এবং সহবাসের নিময় মেনে অধিক সহবাস করলেও কোন ক্ষতি হয় না। স্বামী স্ত্রী যদি স্বাস্থ্যগত ভাবে দুর্বল হয় তাহলে সহবাস কমিয়ে করলে ভালো হয়। প্রতিদিন সহবাস না করে বরং প্রতিসপ্তাহে ৩-৪ দিন সহবাস করলে স্বাস্থ্যের কোন ক্ষতির আশঙ্কা থাকে না।

স্বামি-স্ত্রী বিশেষ করে নব দম্পতিদের মন হচ্ছে পাখির মতো। তাঁরা সুযোগ পেলেই মিলিত হতে চায়। যার ফলে একই দিনে বেশ কয়েকবার তাদের মিলন ঘটে। পরে এটা আর থাকে না। কেননা অধিক সহবাসের ফলে সহবাসের মজা কমে যায়। স্বামী স্ত্রীর স্বাস্থ্য ভালো থাকলে এবং সহবাসের নিময় মেনে অধিক সহবাস করলেও কোন ক্ষতি হয় না। স্বামী স্ত্রী যদি স্বাস্থ্যগত ভাবে দুর্বল হয় তাহলে সহবাস কমিয়ে করলে ভালো হয়।

প্রতিদিন সহবাস না করে বরং প্রতিসপ্তাহে ৩-৪ দিন সহবাস করলে স্বাস্থ্যের কোন ক্ষতির আশঙ্কা থাকে না। আর সহবাসের পর কিছু খাদ্য গ্রহণ করলে ভালো হয়। তাতে পুষ্টির ঘাটতি পূরণ হয়ে যাবে। তাতে সহবাসের স্থায়িত্ব অটুট থাকবে। সহবাসের ক্লান্তি ভাব দূর হবে। আর সহবাস করার ক্ষেত্রে স্বামী স্ত্রীর সমান আগ্রহী হতে হবে।

স্বামীর সহবাস করার চাহিদা আছে কিন্তু স্ত্রীর কোন চাহিদা নেই। এরকম পরিস্থিতিতে স্বামীর উচিত স্ত্রীর মন-মানসিক অবস্থা বুঝে তাঁর কাছে সহবাসের প্রস্তাব করা। আমাদের সমাজে এটা সত্য যে বেশি

প্রতিদিন সহবাস করলে কি স্বাস্থ্যের ক্ষতি হতে পারে

অতিরিক্ত সঙ্গমের ফলে যোনীদ্বার ক্ষত বিক্ষত ও জরায়ু দুর্বলহইয়া যায়।সুতরাং জরায়ুতে পুরুষের বীর্য স্হির থাকিতে পারে না।তাহার ফলে সন্তান উৎপাদনসুদূরপরাহত হইয়া উঠে।তাহা ছাড়া যোনীর শিরা গুলি ঢিলা হইয়া পড়ে।যার কারণে স্বামী স্ত্রী উভয়েই সুখঅনুভব করতে পারেনা।

বরং স্ত্রীর নিকট যন্ত্রনার কারনহয়ে দাঁড়ায়।এমন অবস্হায় স্ত্রীর কঠিন রোগহইয়া পড়ে।শরীর কল্কালসারহয়,চেহারা বিশ্রী হইয়া যায়।এবং অনিয়মিত হায়েজ ও পরিপাকশক্তি হ্রাস পায়।এই ভাবে স্ত্রীর জীবন বিপজ্জনকহইয়া উঠে।পুরুষের শারীরিক অবস্থারঅবনতি ঘটিলে সেই সঙ্গে মানসিকঅবস্থার ও অবনতি সংঘটিত হয়,

পড়ে উহা প্রকৃত অবস্থায় আনিতে বহুসমস্যার সৃষ্ট হয়।অত্যাধিক শুক্র ক্ষয়েরফলে পুরুষত্বহানির আশঙ্কা হইয়া থাকে।ক্রমে ক্রমে ধাতু দুর্বলতা ,শুক্রতারুল্য, জননেন্দ্রিয়ের শিথিলতা,মাংসেপেশরি অবসন্নতা, প্রমেহ, ঘূর্ণনইত্যাদি দুরারোগ্য ব্যাধি হতে পারে.

এটা সম্পুর্ন ভাবে নির্ভর করে যে দুজন সেক্স করবেন তাদের শারীরিক ক্ষমতা ও মানসিক চাহিদার উপর। এর কোন নির্দিষ্ট সংখ্যা নেই। সহবাস করার পরে শরীর দুর্বল লাগা, মাথা ঘোরা, হাত পা ঝিম ঝিম করা- এ সবই স্বাভাবিক। যা অন্য যে কোন কাজ করলে হয়।

প্রতিদিন সহবাস করলে শরীরে কী কী হয়

১) সপ্তাহে দু`দিন যৌন মিলন পুরুষদের হার্ট অ্যাটাকের সম্ভাবনা বহুলাংশে কমিয়ে দেয়।
২) যৌন মিলন ব্যাথা উপশমে অব্যর্থ। যৌন মিলনের সময় অর্গাসমের ফলে অক্সিটোসিন হরমোন ক্ষরণের মাত্রা পাঁচ গুণ বৃদ্ধি পায়। এর সঙ্গেই শরীর এন্ডোরফিন সক্ষরণ করে যা ব্যাথা কমিয়ে দিতে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা নেয়।
৩) নিয়মিত যৌনমিলন শরীরে IgA অ্যান্টিবডির সংখ্যা বাড়িয়ে তোলে। যা রোগ প্রতিরোধে অপরিহার্য্য।
৪) সহবাস ক্লান্তি দূর করে। মানসিক শান্তি তৈরি করে।
৫) যৌনমিলনের পরবর্তী ঘুম আরাম ও শান্তির হয়। যা সার্বিক ভাবে শারীরিক সুস্থতা বৃদ্ধি করে।
৬) প্রত্যেকবার যৌনমিলনের ফলে অন্তত পক্ষে ৮০ ক্যালরি করে ক্ষয় হয়। ফলে ওজন ঝরানোর জন্য মোক্ষম পদ্ধতি সহবাস।
৭) যৌনমিলন চলাকালীন ডিহাইড্রোএপিএন্ড্রোস্টেরন নামের একটি হরমোন ক্ষরিত হয়। এই হরমোন রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বৃদ্ধির সঙ্গে সঙ্গে বিভিন্ন কোষ-কলাকে মেরামত করে। ফলে আয়ু বৃদ্ধি পায়।
৮) সহবাসের সময় হৃদস্পন্দনের হার বৃদ্ধি পায়। ফলে শরীরের বিভিন্ন অঙ্গে ও কোষে রক্ত সঞ্চালনের মাত্রা বৃদ্ধি পায়।
৯) সহবাস চলাকালীন অতিরিক্ত টেস্টোস্টেরনের ফলে যৌনমিলন তৃপ্তি দায়ক হয় এটা সবারই জানা। কিন্তু অনেকেরই জানা নেই টেস্টোটেরন একই সঙ্গে হাড় মজবুত করে, কোলেস্টেরল নিয়ন্ত্রণে রাখে, হার্টের সুস্থতা বজায় রাখে। মহিলাদের ক্ষেত্রে এই সময় অতিরিক্ত ইস্ট্রোজেন ক্ষরণ হার্টের সুস্থতা বজায় রাখে, এবং গন্ধ নিয়ন্ত্রণ করে।
১০) সপ্তাহে অন্তত তিনবার যৌন মিলন বাহ্যিক ভাবে আপনার বয়স দশ বছর কমিয়ে দিতে পারে। সহবাসের সময় শরীরে অক্সিটোসিন, এন্ডোরফিন জাতীয় মলিকিউলস ক্ষরণ বৃদ্ধি পায়। ক্ষতি গ্রস্থ ত্বক কোষ গুলিকে মেরামত করতে পারে এই মলিকিউলস গুলি। এছাড়া এই সময় যৌন মিলন চলাকালীন যে গ্রোথ হরমোন ক্ষরিত হয় তা চামড়ার কুঞ্চন প্রতিরোধ করে। রক্ত সঞ্চালন বৃদ্ধি করে। ত্বক উজ্জ্বল করে।

আর্টিকেলটিতে আমরা প্রতিদিন সহবাস করলে কি হয়. প্রতিদিন সহবাস করলে শরীরে কী কী হয়. সম্পর্কিত তথ্যগুলো তুলে ধরেছি তথ্যগুলো সম্পর্কে যদি আপনার কোন প্রশ্ন থাকে কিংবা কোন জিজ্ঞাসা থাকে সেটি কমেন্টের মাধ্যমে আমাদেরকে লিখে জানাতে পারেন।

আমরা সব সময় আমাদের আর্টিকেল গুলোতে সঠিক ধরনের প্রোডাক্ট সঠিক প্রশ্ন তুলে ধরার চেষ্টা করি . তাই আপনি কিন্তু খুব সহজে আমাদের আর্টিকেলগুলো কোথাকার প্রোডাক্ট গুলো এবং তথ্যগুলো সম্পর্কে আপনার যাবতীয় প্রশ্ন জিজ্ঞাসা গুলো লিখে জানিয়ে দিতে পারেন।

আরো পড়ুনঃ ছেলেদের সু জুতা সরাসরি কিনতে ক্লিক করুন – এখনই কিনুন

আরো পড়ুনঃ মেয়েদের হিল জুতা সরাসরি কিনতে ক্লিক করুন – এখনই কিনুন

কোনটিতে উত্তল দর্পণ ব্যবহৃত হয়

0

কোনটিতে উত্তল দর্পণ ব্যবহৃত হয় গুরুত্বপূর্ণ প্রশ্নের উত্তরটি অনেক ক্ষেত্রে আমাদের জানার প্রয়োজন পড়ে আর আজকের আর্টিকেলটিতে আমরা সংক্ষিপ্ত আকারে গুরুত্বপূর্ণ এই প্রশ্নের উত্তর তুলে ধরবো তো চলা টিকিটের দ্বিতীয় অংশ থেকে উত্তর সম্পর্কে জেনে নেয়া যাক। মোটা ও লম্বা হওয়ার ঔষধ মাত্র ২২০ টাকা থেকে শুরু ঔষধ কিনতে ক্লিক করুন  – এখনই ঔষধ কিনুন

কোনটিতে উত্তল দর্পণ ব্যবহৃত হয়

উত্তল দর্পণ ব্যবহার করা হয় – ভবনের ভিতরে, যানবাহনের আয়না , ম্যাগনিফাইং গ্লাস , নিরাপত্তার উদ্দেশ্যে, রাস্তার আলোর প্রতিফলক ইত্যাদি।

নিচের কোনটিতে উত্তল দর্পণ ব্যবহৃত হয়

উত্তল দর্পণ কোথায় ব্যবহার হয়? উত্তর : গাড়িতে 

ইতিমধ্যে আর্টিকেলটির দ্বিতীয় অংশে আমরা উত্তল দর্পণ কোথায় ব্যবহার করা হয় এ বিষয়ে তুলে ধরেছি আশাকরি আর্টিকেলটির দ্বিতীয় অংশ থেকে প্রশ্নের উত্তর ভালোভাবে দেখে নিবেন। মেয়েদের ব্রা কালেকশন মাত্র ৮০ টাকা থেকে শুরু ব্রা প্যান্টি কিনতে ক্লিক করুন  – এখনই ব্রা কিনুন

একই সাথে আপনি যদি আপনার বিভিন্ন ধরনের প্রোডাক্ট ক্রয় করতে চান আমাদের ওয়েবসাইট ভিজিট করতে পারেন আমাদের ই-কমার্স ওয়েবসাইট এর লিঙ্ক দেয়া রয়েছে তো সরাসরি আমাদের ই-কমার্স ওয়েবসাইট ভিজিট করতে পারেন অনলাইনে আপনার কেনাকাটা সেরে নিতে পারেন ।

মেয়েরা কিভাবে হরমোন বের করে

0

মেয়েরা কিভাবে হরমোন বের করে হরমোন মানব শরীরের জন্য এটি গুরুত্বপূর্ণ উপাদান এই হরমোনের পরিমাণ বেশি হলে যেমন মানুষের শারীরিক সমস্যা দেখা যায় তেমনি হরমোনের পরিমাণ কম হলেও মানুষের নানা ধরনের শারীরিক সমস্যা দেখা দিতে পারে

অনেক সময় মানুষের শরীরে হরমোনের বেশি দেখা যায় আর এই হরমোন বেশি হলে মানুষের জন্য খুবই ক্ষতিকর তাই আপনার শরীরে হরমোনের ব্যালেন্স ঠিক রয়েছে কিনা সেটি অবশ্যই ডাক্তারের কাছ থেকে জেনে নেয়া উচিত। মেয়েদের ব্রা কালেকশন মাত্র ৮০ টাকা থেকে শুরু ব্রা প্যান্টি কিনতে ক্লিক করুন  – এখনই ব্রা কিনুন

মেয়েরা কিভাবে হরমোন বের করে

আপনার শরীরে যদি হরমোন বেশি থাকে তাহলে আপনি কিভাবে শরীরের হরমোন দূর করবেন বা হরমোনের সমস্যা কাটিয়ে উঠবেন সে বিষয়ে অবশ্যই ডাক্তার আপনাকে সঠিক ভালো পরামর্শ দেয়া পরামর্শগুলো মেনে চলার চেষ্টা করবেন। মেয়েদের গুপ্ত স্থান মেয়েদের পু -শি  ক্রয় করার জন্য ক্লিক করুন এখনই কিনুন

মেয়েরা কিভাবে হরমোন বের করে

আশা করি আপনি যদি ডাক্তারের পরামর্শ গুলো মেনে চলেন তাহলে আপনি খুব সহজেই আপনার শরীরের হরমোন বের করতে পারবেন বা হরমোন কমে নিতে পারবেন।

মেয়েরা কিভাবে শরীরের হরমোন বের করে এ সম্পর্কে আমাদের কাছে সঠিক কোনো তথ্য নেই তবে মেয়েরা সাধারণত হরমোন বের করার জন্য ডাক্তারের পরামর্শ নিয়ে থাকেন। কনডম কালেকশন  মাত্র ৭৫০ টাকা থেকে শুরু কনডম কিনতে ক্লিক করুন  – এখনই  কিনুন

আর শরীর থেকে হরমোন বের করার জন্য অবশ্যই আপনার ডাক্তারের পরামর্শ গ্রহণ করা উচিত আশা করি আপনি ডাক্তারের পরামর্শ গ্রহণ করবেন এবং ডাক্তারের পরামর্শ অনুযায়ী শরীর থেকে হরমোন বের করার চেষ্টা করবেন ।

মেয়েদের গুপ্ত স্থানের ছবি – কি ভাবে পাবেন

0

মেয়েদের গুপ্ত স্থানের ছবি – কি ভাবে পাবেন আমাদের আজকের এই আর্টিকেলটিতে আমরা জানার চেষ্টা করব মেয়েদের গুপ্ত স্থানের ছবি দেখার উপকারিতা এবং মেয়েদের গুপ্ত স্থানের ছবি দেখার উপকারিতা।।

ইন্টারনেট থেকে মেয়েদের গুপ্ত স্থানের ছবি দেখা একেবারেই উচিত নয় কারণ এটি একেবারেই অহেতুক এবং এটি একেবারেই একটি খারাপ কাজ বলা চলে তাই মেয়েদের গুপ্ত স্থানের ছবি ইন্টারনেট থেকে না দেখাটাই ভালো। মেয়েদের গুপ্ত স্থান মেয়েদের যৌনাঙ্গ মেয়েদের যোনি ক্রয় করার জন্য ক্লিক করুন – এখনই কিনুন

মেয়েদের গুপ্ত স্থানের ছবি

অনেকেই ইন্টারনেট থেকে মেয়েদের গুপ্ত স্থানের ছবি দেখে থাকেন আবার অনেকে ইন্টারনেটে মেয়েদের গুপ্ত স্থানের ছবি খুঁজে থাকেন গুগলে সার্চ দিলে আপনাকে জাতীয় প্রশ্নের উত্তর বা এজাতীয় প্রশ্নগুলো পেয়ে যাবেন।

মেয়েদের গুপ্ত স্থানের ছবি

ইন্টারনেটে আপনি বিভিন্ন ধরনের তথ্য পেয়ে যাবেন তবে এই তথ্য গুলোর মধ্যে কোনটি আপনার জন্য ব্যবহার করা ঠিক আবার কোনটি ব্যবহার করা ঠিক নয় সে বিষয়টি সিদ্ধান্তটি আপনাকে নিতে হবে। মেয়েদের গুপ্ত স্থান মেয়েদের যৌনাঙ্গ মেয়েদের যোনি ক্রয় করার জন্য ক্লিক করুন – এখনই কিনুন

মেয়েদের গুপ্ত স্থানের ছবি এই আর্টিকেলটি আমরা একটি ই-কমার্স প্রতিষ্ঠানের পক্ষ থেকে তৈরি করেছে তাই আমাদের আর্টিকেল গুলোর মাধ্যমে আমরা অনেকে সচেতন করার চেষ্টা করি আবার আমাদের আর্টিকেল গুলোর মাধ্যমে আমরা সঠিক তথ্য উপস্থাপনের চেষ্টা করি তাই আপনি অবশ্যই সঠিক তথ্য বা মন্তব্য সম্পর্কে গুরুত্বপূর্ণ আমাদেরকে মন্তব্যের মাধ্যমে জানাতে পারেন।

মেয়েদের গুপ্ত স্থানের ছবির

মেয়েদের গুপ্ত স্থানের ছবি নিয়ে আমাদের আজকের আর্টিকেলটি আমরা নিজস্ব ভাষায় নিজেরা লিখে উপস্থাপন করেছে আমাদের আর্টিকেলটি সম্পর্কে আপনাদের যাবতীয় প্রশ্ন কিংবা জিজ্ঞাসা থাকলে সেটি অবশ্য আমাদেরকে কমেন্টের মাধ্যমে লিখে জানিয়ে দিতে পারেন। মেয়েদের গুপ্ত স্থান মেয়েদের যৌনাঙ্গ মেয়েদের যোনি ক্রয় করার জন্য ক্লিক করুন – এখনই কিনুন

মেয়েদের গুপ্ত স্থানের ছবি

মেয়েদের গুপ্ত স্থানের ছবি নিয়ে মানুষের মধ্যে বিভিন্ন ধরনের প্রশ্ন জিজ্ঞাসা থাকতে পারে আপনার মধ্যে যদি এরকম কোন প্রশ্ন থাকে মেয়েদের গুপ্ত স্থানের ছবি নেই তাহলে সেটি আপনি আমাদেরকে মন্তব্যের মাধ্যমে জানাতে পারেন এবং পাঠকদের কে জানাতে পারেন ।

আশাকরি আমাদের এই আর্টিকেলটি মাত্র আপনি মেয়েদের গুপ্ত স্থানের ছবি সম্পর্কে যাবতীয় প্রশ্ন হিম্বাহ যাবতীয় মন্তব্য এগুলো দেখা ঠিক নাকি এগুলো দেখা ঠিক নয় এ সম্পর্কে আপনার মূল্যবান পরামর্শ আপনাদেরকে জানিয়ে দেবেন।

যদিও মেয়েদের গুপ্ত স্থান নিয়ে লেখার কোনো বিষয় নেই মেয়েদের গুপ্ত স্থানের ছবি দেখার নিয়ম কিভাবে ছবি দেখা যায় কিভাবে ভালো মেয়েদের গুপ্ত স্থানের পিকচার দেখা যায় এ সম্পর্কে আমরা তেমন কোনো গুরুত্বপূর্ণ তথ্য বা পরামর্শ আর্টিকেলটিতে উপস্থাপন করতে পারিনি।

আপনি কিন্তু চাইলে সহজেই মেয়েদের গুপ্ত স্থানের ছবি দেখে নিতে পারবেন আপনি কিনতে চাইলে সহজেই মেয়েদের গুপ্ত স্থানের পিকচার দেখে নিতে পারবেন আমাদের আর্টিকেলটিতে না আপনি ইন্টারনেট বা বিভিন্ন মাধ্যম ব্যবহার করে এই কাজটি করতে পারে তবে আমরা আপনাকে এই কাজটি করা থেকে নিরুৎসাহিত করব।

মেয়েদের গুপ্ত স্থানের ছবি

পাঠক আপনার মূল্যবান মন্তব্য আপনার মূল্যবান পরামর্শ আপনি আমাদেরকে জানিয়ে দিতে পারেন আপনার মূল্যবান মন্তব্য কিংবা মূল্যবান পরামর্শের মাধ্যমে আমাদেরকে সাহায্য করতে পারেন আপনার মূল্যবান মন্তব্য কিংবা মূল্যবান পরামর্শের মাধ্যমে আপনি আমাদেরকে সঠিক তথ্য বা সঠিক পরামর্শ দিতে পারেন।

আমরা আমাদের আর্টিকেল গুলোতে সঠিক তথ্য বা পরামর্শের জন্য কাজ করে থাকে আমরা একটি সমাজ প্রতিষ্ঠার অংশবিশেষ তাই আমরা আমাদের এই আর্টিকেল গুলোতে প্রোডাক্ট বিক্রি করার চেষ্টা করে থাকি তাই আমাদের প্রত্যেকটি আর্টিকেলে আপনি বিভিন্ন ধরনের প্রোডাক্টের কালেকশন পেয়ে যাবে।

পেগনেট নষ্ট করার উপায় ,, প্রেগন্যান্সি নষ্ট করার ঔষধ

0

পেগনেট নষ্ট করার উপায় সম্পর্কে অনেকেই জানতে চেয়ে থাকেন তবে বর্তমান সময়ে প্রেগন্যান্সি বা পেগনেট নষ্ট করার অনেক উপায় রয়েছে আপনি কিন্তু পদ্ধতি গুলো অবশ্যই দেখতে পারেন তবে আমরা বলব আপনার উচিত হবে পেগনেট নষ্ট করার পূর্বে পেগনেট হওয়ার বিষয় গুলো সঠিকভাবে আটকানো। মেয়েদের ব্রা কালেকশন www.gazivai.com এ মাত্র ৮০ টাকা থেকে শুরু ব্রা প্যান্টি কিনতে ক্লিক করুন – এখনই ব্রা কিনুন

পেগনেট নষ্ট করার উপায়

পেগনেট নষ্ট করার উপায় হিসাবে আপনি একজন ডাক্তারের সাথে আলোচনা করতে পারেন অথবা আপনি বিভিন্ন মাধ্যম থেকে এ বিষয়ে তথ্য সংগ্রহ করতে পারেন তবে আমরা পেগনেট নষ্ট করার বিষয়ে একেবারে উৎসাহিত করছি না তাই আমাদের আর্টিকেল গুলোতে নষ্ট করার বিষয়ে আমরা কোনো সঠিক তথ্য উপস্থাপন করছি না।

আপনি যদি একটু সতর্ক হোন আপনি যদি একটু সচেতন হন তাহলে আপনি কিন্তু সহজে পেগনেট হওয়া থেকে নিজেকে রক্ষা করতে পারবেন এজন্য আপনি বিভিন্ন ধরনের পদ্ধতি গুলো অনুসরণ করতে পারেন আপনার উচিত হবে এই পদ্ধতি গুলো অনুসরণ করার মাধ্যমে নিজেকে সুরক্ষিত এবং সচেতন থাকা। মোটা ও লম্বা হওয়ার ঔষধ www.gazivai.com এ মাত্র ২২০ টাকা থেকে শুরু ঔষধ কিনতে ক্লিক করুন – এখনই ঔষধ কিনুন

পেগনেট নষ্ট করার উপায়

প্রেগন্যান্সি নষ্ট করার ঔষধ

আমরা আমাদের আর্টিকেল গুলোতে আমরা আমাদের ওয়েবসাইটে বিভিন্ন স্থানে তথ্য তুলে ধরে এবং আপনার প্রেগনেট আপনি কিভাবে সহজেই প্রেগন্যান্ট হওয়া থেকে নিজেকে রক্ষা করতে পারবে এজন্য বিভিন্ন ধরনের পিল কনডম ঔষধ ব্যবহার করতে পারেন আপনার উচিত হবে এগুলো ব্যবহার করার মাধ্যমে নিজেকে সুরক্ষিত রাখা।

আমাদের আর্টিকেলটিতে আমরা যে সকল তথ্য তুলে ধরে তথ্যগুলো সম্পর্কে আপনার যাবতীয় প্রশ্ন বা জিজ্ঞাসা থাকলে সেটি অবশ্যই কমেন্টের মাধ্যমে লিখে জানিয়ে দিতে পারেন

পেঁপে খেলে কি বাচ্চা নষ্ট হয় । পাকা পেঁপে খেলে কি বাচ্চা নষ্ট হয়

0

পেঁপে খেলে কি বাচ্চা নষ্ট হয় । পাকা পেঁপে খেলে কি বাচ্চা নষ্ট হয় পাকা পেঁপে কিংবা কাঁচা পেঁপে কোন পেঁপে খেলে গর্ভের সন্তান নষ্ট হয় না বরঞ্চ ডাক্তাররা একটু সতর্ক করে থাকে কোন বিষয়ে সতর্ক করে থাকল চলুন জেনে নেয়া যাক।

পেঁপে খেলে কি বাচ্চা নষ্ট হয়

গর্ভের সময় ডাক্তাররা মায়েদের পাকা পেঁপে খেতে বলেন কাঁচা পেঁপে খেতে একটু এড়িয়ে যেতে বলেন কারণ কাঁচা পেঁপে এক ধরনের উপাদান রয়েছে যা মেয়েদের শরীরে এসিডিটি তৈরি করতে পারে জরায়ুতে নানা ধরনের সমস্যা তৈরি করতে পারে তবে কাঁচা পেঁপে হোক কিংবা পাকা পেপে পেপে খেলে গর্ভের সন্তান নষ্ট হবে না। মোটা ও লম্বা হওয়ার ঔষধ www.gazivai.com এ মাত্র ২২০ টাকা থেকে শুরু ঔষধ কিনতে ক্লিক করুন – এখনই ঔষধ কিনুন

পেঁপে খেলে কি বাচ্চা নষ্ট হয়

পাকা পেঁপে খেলে কি বাচ্চা নষ্ট হয়

পাকা পেঁপে খেলে গর্ভের সন্তান নষ্ট হবে না বরং পাকা পেঁপে খেলে আরও শারীরিক নানা ধরনের উপকারিতা পাওয়া যায় তাই পুষ্টিবিদেরা গবেষকরা গর্ভে সন্তান বা গর্ভাবস্থায় পাকা পেঁপে খাওয়ার জন্য বলে থাকেন তবে পরিমাণে সীমিত খাওয়া উচিত।

কাঁচা পেঁপে খেলে কি বাচ্চা নষ্ট হয়

তবে গর্ভবতী অবস্থায় গর্ভাবস্থায় কাঁচা পেঁপে খাওয়া থেকে অবশ্যই বিরত থাকা উচিত আর কাঁচা পেঁপেতে থাকা উপাদান যা শরীরের জন্য ক্ষতিকারক হয়ে ওঠে শরীরে এসিডিটি অ্যালার্জির সমস্যা তৈরি করতে পারে কিংবা কাঁচা পেঁপে শরীরে নানা রকম ঝামেলা পাকিয়ে দিতে পারে।। মেয়েদের ব্রা কালেকশন www.gazivai.com এ মাত্র ৮০ টাকা থেকে শুরু ব্রা প্যান্টি কিনতে ক্লিক করুন – এখনই ব্রা কিনুন

আজকের আর্টিকেলটিতে আমরা কাঁচা পেঁপে নাকি পাকা পেঁপে গর্ভাবস্থায় পেঁপে খাওয়া উচিত না অনুচিত এ বিষয়ে গুরুত্বপূর্ণ এবং সঠিক একটি সমস্যা সমাধান পেয়ে গেলাম আর্টিকেলটি বন্ধুদের সাথে শেয়ার করে জানিয়ে দিতে পারেন ।

x
error: Content is protected !!